একই সাথে একাধিক মানুষ রহস্যময় ভাবে উধাও হয়ে যাওয়ার ৪টি সত্য ঘটনা | টেকএলার্মবিডি।সবচেয়ে বড় বাংলা টিউটোরিয়াল এবং ব্লগ
Profile
ইয়াসমিন রাইসা

মোট এলার্ম : 236 টি


আমার এলার্ম পাতা »

» আমার ওয়েবসাইট :

» আমার ফেসবুক :

» আমার টুইটার পাতা :


স্পন্সরড এলার্ম



একই সাথে একাধিক মানুষ রহস্যময় ভাবে উধাও হয়ে যাওয়ার ৪টি সত্য ঘটনা
FavoriteLoadingপ্রিয় যুক্ত করুন
Share Button

কোনো ধরণের চিহ্ন না রেখেই মানুষের অদৃশ্য হয়ে যাওয়ার বিষয়টি হয়তো বেশ সাধারণ ঘটনা। কিন্তু একসাথে একাধিক মানুষ একই সময়ে উধাও হয়ে যাওয়ার মতো আতঙ্ক সৃষ্টিকারী কিছু ঘটনার ব্যাখ্যা তদন্তকারী ও বিশেষজ্ঞরা আজো দিতে পারেন নি। প্রাথমিকভাবে এ ধরণের ঘটনাগুলোকে অপহরণ বলে চালিয়ে দেয়া গেলেও, এক সাথে অনেক মানুষের উধাও হয়ে যাওয়ার বিষয়টি হয়তো শুধুই অপহরণ নয়। আজ আমরা সেরকমই কিছু ঘটনার কথা তুলে ধরবো এ ফিচারে। শুরু করা যাক।

(১)তিনটি মেয়ের গল্প

২৩ ডিসেম্বর, ১৯৭৪। মেরি র‍্যাচেল ত্রলিকা (১৯), লিসা রেনে উইলসন(১৪)ও জুলি অ্যান মোসেলে(৯) নামের তিনটি মেয়ে বের হয়েছিল বড়দিনের কেনাকাটার জন্য। তাদের গন্তব্য ছিল টেক্সাসের ফোর্ট ওর্থের Seminary South Shopping Center। তিন মেয়ে আর বাড়ি ফিরে আসে নি। তাদের গাড়িটিকে সেদিন সন্ধ্যা ৬ টায় তালাবদ্ধ অবস্থায় পাওয়া গেল শপিং সেন্টারের সামনে। গাড়ির ভেতরে বড়দিনের জন্য কেনা তাদের উপহারগুলোও ছিল। তাহলে মেয়ে তিনটি কোথায় গেল? পরের দিন র‍্যাচেলের পরিবার একটি চিঠি পেল, যাতে লেখা ছিল তারা এ সপ্তাহের জন্য হিউস্টনে বেড়াতে যাচ্ছে। পরে বোঝা গেল চিঠিটি র‍্যাচেলের লেখা ছিল না। কারণ ৭ দিন পরও তারা কেউ ফিরে আসে নি। তদন্তে বেশ কয়েকজন প্রত্যক্ষদর্শীর স্বাক্ষ্য নেয়া হয়। যাদের একজন জানান,তিনি একটি গাড়িতে করে মেয়ে তিনটিকে জোর করে উঠিয়ে নিতে দেখেছেন, যেখানে অন্য আরেকজন দাবি করেন ঘটনার দিন রাত সাড়ে এগারোটায় তিনি মেয়েদেরকে সে শপিং মলের প্রহরীদের ট্রাকের উপর বসে থাকতে দেখেছিলেন। কোন কথারই সত্যতা প্রমাণিত হয় নি ও পুরো ঘটনাটি এখনো অমীমাংসিত।

(২)‘সারাহ জো’নৌকার যাত্রীরা

১৯ ফেব্রুয়ারি, ১৯৭৯।
হাওয়াই দ্বীপপুঞ্জের মাওই দ্বীপ থেকে বেঞ্জামিন কালামা,র‍্যালফ মালাইয়াকিনি,স্কট মুরম্যান,প্যাট্রিক ওয়েজনের ও পিটার হ্যাঞ্চেট নামে ৫ ব্যক্তি মাছ ধরার নৌকা নিয়ে সমুদ্র বের হন। তাদের নৌকার নাম ছিল ‘সারা জো’। এক ভয়াবহ ঝড়ের কবলে পড়ে নৌকা ও তার ৫ আরোহী সবাই নিখোঁজ হয়ে যান। প্রথমে ধরে নেয়া হয়েছিল তাদের সলিল সমাধি ঘটেছে। কিন্তু ১৯৮৮ সালে দুর্ঘটনাস্থল থেকে প্রায় ২০০০ মাইল দূরে সারাহ জো নৌকাটির অংশ বিশেষ পাওয়া গেল এক নির্জন দ্বীপে। ঘটনা জটিল আকার ধারণ করলো যখন দ্বীপের ভেতর একটি কবর পাওয়া গেল, যাতে শায়িত ছিলেন স্কট মুরম্যান। কিন্তু নৌকার বাকি ৪ আরোহীর কি হলো? স্কটকে কি তারাই কবর দিয়েছিলেন? তবে তারা কোথায় গেলেন? আর যদি বাকি ৪ জনের কেউই স্কটকে কবর না দেন তবে কে দিল?উত্তর এখনো অজানা!

(৩)ইন্ডিয়ানার ঘটনা

তিন বান্ধবী অ্যান মিলার(২১),প্যাট্রিসিয়া ব্লো (১৯)ও রেনে ব্রাহল(১৯) Indiana Dunes State Park এ ঘুরতে গেল। দিনটি ছিল ১৯৬৬ সালের ২ জুলাই। তাদের তিনজনই রহস্যময়ভাবে নিখোঁজ হয়ে গেল। তাদের সাথে থাকা জিনিসপত্র পাওয়া গেল অক্ষত অবস্থায়। পার্কের ভেতরে ছিল একটি হ্রদ। এক দম্পতি জানান যে তারা তিন তরুণীকেই হ্রদে নামতে দেখেছেন। তারা হ্রদের ভাসমান একটি বোটের চালকের সাথে কথা বলছিলেন। এরপরই তিনজন মেয়েই সেই বোটে উঠে। এরপর তিনজন মেয়ে, সেই নৌকা ও তার চালক-কাউকেই আর দেখা যায় নি। তদন্তে উঠে আসে নিখোঁজ হওয়ার সময় অ্যান মিলার তিনমাসের অন্তঃসত্ত্বা ছিলেন,খুব সম্ভবত প্যাট্রিসিয়াও। অনেকেই বলেন বোটটি ছিল র‍্যালফ লার্গো জুনিয়রের। এ ব্যক্তির পুরো পরিবার অবৈধ গর্ভপাতের জন্য কুখ্যাত ছিল। অনেকে দাবি করেন, তিন তরুণীর উধাও হয়ী যাওয়ার পেছনে এ ব্যক্তির হাত আছে। কিন্তু কিছুই প্রমাণ করা যায় নি।

(৪)পাঁচ শিশু গেল কোথায়?

পরিবারের একজন সন্তানের নিখোঁজ হয়ে যাওয়ার ঘটনা হতে পারে যেকোন পরিবারের জন্য ভয়াবহ। কিন্তু এক সাথে ৫ সন্তান যদি উধাও হয়ে যায় তবে? আর সেঘটনা যদি ঘটে একই রাত্রে?১৯৪৫ সাল। জর্জ ও জেনি সোডারের ছিল ১০ সন্তান। কিন্তু পশ্চিম ভার্জিনিয়াতে তাদের বাড়িতে যখন অগ্নিকান্ড হলো তার পর থেকে পাঁচ সন্তানকে কোথাও খুঁজে পাওয়া গেল না। যে কেউ ধারণা করতে পারে ৫ টি শিশুই আগুনে পুড়ে মারা গিয়েছে কিন্তু এটা অসম্ভব যে আগুন এদেরকে একদম অদৃশ্য করে দিবে! ধারণা করা হয়, বাচ্চাগুলোকে অপহরণ করার জন্যই পরিকল্পিতভাবে আগুন লাগানো হয়। কারণ পরে দেখা যায় বাড়িটির টেলিফোন লাইনের তার কেউ কেটে দিয়েছে। এছাড়া বাড়ি থেকে বের হওয়ার একটি মই বাড়ি থেকে ৭৫ ফুট দূরে একটি বেড়ি-বাঁধের কাছে পাওয়া গেল। পরে অনেকেই ৫ টি শিশুকে নিজের চোখে দেখার দাবি করেন। ১৯৬৮ সালে সোডার দম্পতির কাছে একটি রহস্যময় ছবি আসে যেটা দেখে অনুমান করা হয় সেটা ছিল তাদের হারিয়ে যাওয়া এক সন্তান লুইস সোডার। দুর্ভাগ্যজনকভাবে জর্জ ও জেনি তাদের ৫ সন্তানের খোঁজ না পেয়েই মারা যান। প্রচ্ছদের ছবিটি সেই হারিয়ে যাওয়া শিশুদেরই। তবে এখানে লুইসের ছবি দু’বার দেয়া হয়েছে।

(2491)

Share Button
  

FavoriteLoadingপ্রিয় যুক্ত করুন

এলার্ম বিভাগঃ অজানা রহস্য

এলার্ম ট্যাগ সমূহঃ > > >

Ads by Techalarm tAds

এলার্মেন্ট করুন

You must be Logged in to post comment.

© টেকএলার্মবিডি।সবচেয়ে বড় বাংলা টিউটোরিয়াল এবং ব্লগ | সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত

জেগে উঠো প্রযুক্তি ডাকছে হাতছানি দিয়ে!!!


Facebook Icon