এবার ড্রোন ছাড়বে ফেসবুক ,তবে বোমা ফেলার জন্য নয় | টেকএলার্মবিডি।সবচেয়ে বড় বাংলা টিউটোরিয়াল এবং ব্লগ
Profile
ইয়াসমিন রাইসা

মোট এলার্ম : 236 টি


আমার এলার্ম পাতা »

» আমার ওয়েবসাইট :

» আমার ফেসবুক :

» আমার টুইটার পাতা :


স্পন্সরড এলার্ম



এবার ড্রোন ছাড়বে ফেসবুক ,তবে বোমা ফেলার জন্য নয়
FavoriteLoadingপ্রিয় যুক্ত করুন
Share Button

এবার ড্রোন ছাড়বে ফেসবুক

মানববিহীন প্লেন বা ড্রোনের সঙ্গে পরিচিতিটা আমাদের নেতিবাচকভাবে। পাকিস্তান, আফগানিস্তান, ইয়েমেনে যুক্তরাষ্ট্রের ড্রোন হামলায় শত শত মানুষের প্রাণহানি আর ক্ষয়ক্ষতি ড্রোনকে আমাদের কাছে ‘ধ্বংসাত্মক’ হিসেবে উপস্থাপন করেছে।

কিন্তু ড্রোন শুধু বোমা ফেলার জন্য নয়, মানুষের অনেক উপকারে ব্যবহার হয়। দেশের সীমান্তে চোরকারবারীদের ওপর নজরদারিতে ড্রোনের ব্যবহার পুরোনো বিষয়ে পরিণত হয়েছে। এবার ইন্টারনেট সরবরাহে ব্যবহৃত হতে যাচ্ছে ড্রোন।

আকাশে উড়ে উড়ে বিশ্বে ইন্টারনেট সরবরাহের উদ্যোগ হাতে নিয়েছে বিশ্বের শীর্ষ সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম ফেসবুক। প্রকল্প মতে, বিশ্বের অনুন্নত দেশগুলোতে ইন্টারনেট সেবা দিতে ফেসবুকের সৌরশক্তি চালিত ১১ হাজার ড্রোন আকাশে উড়বে।

প্রথমে আফ্রিকা মহাদেশ পাবে এ সুবিধা। পর্যায়ক্রমে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে এ সেবা ছড়িয়ে দেবে ফেসবুক। আফ্রিকার আকাশে টানা পাঁচ বছর উড়বে ড্রোনগুলো।

প্রকল্প মতে, সৌরশক্তি চালিত এসব ড্রোন ভূমি থেকে ৬৫ হাজার ফুট উপরে উড়বে যা স্যাটেলাইটের মতোই কাজ করবে, তবে খরচ স্যাটেলোইটের তুলনায় কম পড়বে।

ইন্টারনেট সরবরাহে ড্রোনের এ ব্যবহারকে বলা হচ্ছে অ্যাটমোসফেরিক পার্কিং (Atmospheric Parking)। এ পদ্ধতিতে সোলারা-৫০ ও সোলারা-৬০ মডেলের এ ড্রোনগুলো ১০০ কেজি পর্যন্ত যন্ত্রপাতি বহন করতে পারবে।

ড্রোন কেনার বিষয়টি নিয়ে এরইমধ্যে যুক্তরাষ্ট্রের ড্রোন নির্মাতা প্রতিষ্ঠান টিটান অ্যারোস্পেসের সঙ্গে কথা বলেছে ফেসবুক ইনকরপোরেশন। ৬শ কোটি মার্কিন ডলারে টিটান অ্যারোস্পেস কিনতে আগ্রহ প্রকাশ করেছে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ।

তবে ফেসবুক থেকে এ বিষয়ে কোনো কিছু না জানালেও ফেসবুকের এ প্রকল্পের কথা জানিয়েছে তথ্য প্রযুক্তি বিষয়ক বøগসাইট টেকক্রানচ (TechCrunch) ও সিএনবিসি।

টেকক্রানচ ও সিএনবিসি জানিয়েছে, পুরো বিশ্বকে ইন্টারনেটের আওতায় আনতে ফেসবুকের সহ-প্রতিষ্ঠাতা ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মার্ক জাকারবার্গের ঘোষিত ইন্টারনেট.অরগ (internet.org)-এর উদ্দেশ্য পূরণে নতুন এ উদ্যোগ নেওয়া হচ্ছে। বিভিন্ন সূত্র মতে, বর্তমানে বিশ্বের ২৭০ কোটি (২.৭ বিলিয়ন) মানুষ ইন্টারনেট ব্যবহার করেন।

ধারণা করা হচ্ছে, বেলুনের সাহায্যে গুগলের ইন্টারনেট সরবরাহ প্রকল্পের প্রতিদ্ব›দ্বী মনে করা হচ্ছে ফেসবুকের প্রকল্পকে। লুন (ষড়ড়হ) নামের প্রকল্পের আওতায় বায়ুমন্ডলের স্ট্রাটোসফেয়ার স্তরে ৩০টি বেলুন স্থাপন করার করবে গুগল। এসব বেলুন থ্রিজি গতির ইন্টারনেট সেবা দিতে পারবে। তবে এগুলোর স্থায়িত্ব হবে মাত্র ১০০ দিন।

ফেসবুক টিটান কিনছে কিনা বা অসংখ্য প্লেন কিনতে চেয়েছে সে সম্পর্কে মন্তব্য করতে অস্বীকৃতি জানান টিটানের প্রধান নির্বাহী ভার্ন রাবার্ন     (1264)

Share Button
  

FavoriteLoadingপ্রিয় যুক্ত করুন

এলার্ম বিভাগঃ আলোচিত খবর

এলার্ম ট্যাগ সমূহঃ > >

Ads by Techalarm tAds

এলার্মেন্ট করুন

You must be Logged in to post comment.

© টেকএলার্মবিডি।সবচেয়ে বড় বাংলা টিউটোরিয়াল এবং ব্লগ | সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত

জেগে উঠো প্রযুক্তি ডাকছে হাতছানি দিয়ে!!!


Facebook Icon